• Breaking News

    কলকাতাকে সাফল্য দিতে এসেছি, বললেন ক্যান্সারজয়ী কোচ মোলিনা

    ইউরোর সেরা প্লেয়ার গ্রিজমান



    1fe5af8e-48a4-4270-afa6-72a7e3baa2a1রাইট স্পোর্টস ডেস্ক
    ক্যান্সার এক সময় গ্রাস করেছিল তাঁকে। ২০০১ সালে ক্যান্সারের জন্যই খেলা থেকে সরে গিয়েছিলেন। সুস্থ হয়ে আবার ফেরেন গোলের তলায়। কী ভাবে জিতেছিলেন সেই কঠিন ম্যাচ?
    শুক্রবার দুপুরে ভিক্টোরিয়া হাউসে বসে আতলেকিতো মাদ্রিদের প্রাক্তন বলে দিলেন, ‘আপনার অতীত সব সময় আপনাকে মোটিভেট করবে। খুব খারাপ সময়ের মধ্যে দিয়ে গিয়েছিলাম। সেখান থেকে বেরিয়েও এসেছি। সব সময় সামনে তাকিয়ে এগোনোর চেষ্টা করেছি।’
    শুক্রবার সকালেই কলকাতায় পা দিলেন আতলেতিকোর ক্যান্সারজয়ী কোচ হোসে ফ্রান্সিসকো মোলিনা। আইএসএল থ্রির জন্য টিমের নতুন লাল-সাদা জার্সিও তুলে দেওয়া হল তাঁর হাতে। মিনিট পনেরোর সাংবাদিক সম্মেলনে যা যা বললেন এটিকের নতুন কোচ, তাই তুলে ধরা হল।
    চাপ‌: এটিকে প্রথম বার আইএসএল চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল, জানি। সেই টিমটাকে সাফল্য দেওয়াটাই তো আমার একমাত্র কাজ হবে। সবচেয়ে বড় কথা হল, নিজেকে সব সময় প্রমাণ করতে হয়। সেই দিক থেকে দেখতে হলে এটা আমার কাছে চ্যালেঞ্জ তো বটেই। তবে যদি চাপের কথা বলেন, তা হলে বলব, সেটা সবার জীবনেই থাকে। আমি চাপটা সামলাতে জানি।
    টিম নিয়ে‌: টিম কেমন হয়েছে, সেটা কর্তাদের কাছে জেনে নিয়েছি। মোটামুটি টিমটা গোছানো হয়ে গিয়েছে। গত বারের অনেক প্লেয়ারকেই ধরে রাখা হয়েছে। শহরের দুটো বড় টিম ইস্টবেঙ্গল-মোহনবাগানের কিছু প্লেয়ার এটিকেতে আছে, সেটা জানি।
    আইএসএল পরিকল্পনা‌: মাদ্রিদে এক মাসের ক্যাম্প হবে। টিমকে সাফল্য দিতে হলে সব ম্যাচ জেতা দরকার। আর তার জন্য দরকার একটা নির্দিষ্ট পরিকল্পনা। পুরো টিমটা নিয়ে প্রি সিজনে নামার পর সেটা ঠিক করে নেব।
    আগে টিম, পরে কোচ বাছা: টিমে অনেক বদল হয়েছে। সেটা তো দরকার। টিম যদি ভবিষ্যতের দিকে তাকিয়ে তৈরি করা হয়, সাফল্যের জন্য তৈরি করা হয়, তা হলে টিমে বদল আসবেই। আসল ব্যাপার হল, টিমে অ্যাটাক আর ডিফেন্সের মধ্যে ব্যালান্সটা ঠিকঠাক রাখা।
    হাবাসের বদলি কোচ‌: আমি জানি উনি প্রচুর সাফল্য দিয়েছিলেন। চাপ থাকবে। কিন্তু আমার টার্গেটই হল, আইএসএলের সেরা ও শক্তিশালী টিম হিসেবে কলকাতাকে তুলে ধরতে চাই।
    ভারতীয় ফুটবল‌: এখানে আসতে পেরে ভালো লাগছে। ভারতীয় ফুটবলকে কিছু দিতে পারলে ভালো লাগবে। আসলে যে কোনও দেশের ফুটবলের উন্নতির পিছনে থাকে কিছু সঠিক ভাবনা। যুব উন্নয়ন দরকার। অ্যাকাডেমি বানাতে হবে।
    চেনা ইস্টবেঙ্গল: কাটিচের কোচ থাকাকালীন এএফসি কাপে ইস্টবেঙ্গলের সঙ্গে খেলেছিলাম। গত বার আইএসএলে কলকাতা টিমের কিছু ম্যাচের ভিডিও দেখেছি। তাই অনেককেই এখন চিনি।
    ইউরো কাপের সেরা প্লেয়ার ও টিম‌: আমার তো গ্রিজমানকে ভালো লাগল। দারুণ প্লেয়ার। আর দেশের কথা যদি বলেন, পর্তুগাল জিতল ঠিকই, তবে জার্মানির খেলা বেশি ভালো লেগেছে।

    No comments