• Breaking News

    অনূর্ধ্ব ১৮ আই লিগের ফাইনালে ইস্টবেঙ্গল

    ফাইনালে সামনে এআইএফএফ আকাদেমি, মুখরক্ষায় লালহলুদের ছোটরাই ভরসা 


    শান্তনু ব্যানার্জি


    বড়রা ব্যর্থ। টানা ১৪ বছর ধরে। ঠিক সেই সময়েই ইস্টবেঙ্গলের ছোটরা নিয়ে এল সম্মান পুনরুদ্ধারের সুযোগ। আই লিগ অনূর্ধ্ব ১৮ সেমিফাইনালে বারাসতে সালগাওকরকে ৩-২ ব্যবধানে হারিয়ে ফাইনালে পৌঁছে। সেখানে তাদের সামনে এআইএফএফ আকাদেমি, যারা শুক্রবার সকালেই অন্য সেমিফাইনালে সাডেন ডেথ-এ হারিয়েছে ইউনাইটেড স্পোর্টসকে।

    সেমিফাইনালে সালগাওকরের বিরুদ্ধে জোড়া গোল করে খেতাব জয়ের স্বপ্ন চাগিয়ে তুলেছেন সুরনজিৎ সিং। লাল হলুদ জনতার নয়নের মনি হয়ে উঠেছেন সুরনজিতের মতোই বিদ্যাসাগর সিংও। শুক্রবার সালগাওকরের বিরুদ্ধে বিদ্যাসাগরই ১৪ মিনিটে গোলের দরজা খুলে ফেলেছিলেন প্রথমে। মনিপুরের কৃষক পরিবারের ছেলে বিদ্যাসাগরের পায়ে-মাথায় এখন  অনূর্ধ্ব ১৮ আই লিগ জয়ের স্বপ্ন। প্রতিযোগিতায়  মশাল বিগ্রেড ১৩ ম্যাচে ২০ গোল করেছিল, সেমিফাইনালের আগেই। শুক্রবার জুড়ল আরও তিন, মোট ২৩। সর্বোচ্চ ৮ গোলের মালিক লালছানহিমা ফাইনালে তুরুপের তাস হয়ে উঠতেই পারেন।

    সদ্য সমাপ্ত আই লিগে লালহলুদের সিনিয়ররা শেষ করেছিল তৃতীয় স্থানে। হতাশ ভক্তদের কাছে এখন ভরসা ছোটদের অনূর্ধ্ব ১৮ ফাইনাল। এআইএফএফ এলিট আকাদেমিকে হারিয়ে তাদের প্রিয় দল চ্যাম্পিয়নশিপ খেতাব অর্জন করবে, প্রত্যাশার পারদ চড়তে শুরু করে দিয়েছে এখনই।

    যদিও, প্রচণ্ড গরমে দুপুর সাড়ে তিনটে বা সকাল ন’টায় খেলা নিয়ে সব দলেই চিন্তা। খেলতেও হচ্ছে একদিনের ব্যবধানেই। তার ওপর কৃত্রিম মাঠে খেলা, যেখানে চোটের সম্ভাবনা বেশি। বারাসতে তো কৃত্রিম আলোর ব্যবস্থা আছে। দেশের ফুটবল র‍্যাঙ্কিং প্রথম ১০০য় পৌঁছনোর পরও কি এআইএফএফ বাড়তি নজর দিতে পারে না, অনূর্ধ্ব ১৮ আই লিগে? দেশের ভবিষ্যৎ যে আগামী প্রজন্মের এই তারকারাই!

    No comments